মঙ্গলবার, অক্টোবর ২৭, ২০২০
প্রচ্ছদ লিড-৩ রিজেন্ট গ্রুপের এমডির বিরুদ্ধে মানববন্ধন

রিজেন্ট গ্রুপের এমডির বিরুদ্ধে মানববন্ধন

দ্যা বাংলা এক্সপ্রেস ডটকমঃ রিজেন্ট গ্রুপের এমডির মাসুদ পারভেজের বিরুদ্ধে ২০১৫ সালের চেক প্রতারনা মামলার বিচার চেয়ে মানববন্ধন করে ভোক্তভোগী মিঠু গাজী।

বৃহস্পতিবার (১৬জুলাই) দুপুর ১২টায় নারায়ণগঞ্জ আদালত প্রাঙ্গণে মানববন্ধনটি করে।

মানববন্ধনে মিঠু গাজী বিচার চেয়ে বলেন,২০১৫ সালে রিজেন্ট গ্রুপের এমডি মাসুদ পারভেজ আমার কাছ থেকে ধার সূরপ ১০লক্ষ ৯০ হাজার টাকা নেয়।এবং পরবর্তীতে টাকার জন্য চাপ দিলে একটি চেক প্রদান করে কিন্তু ব্যাংকে গিয়ে জানতে পারি তার ব্যাংক একাউন্টে সেই পরিমান টাকা নেই এবং ব্যাংক চেকটি ডিসঅনার করে ফেরত দেয়।তাই বাধ্য হয়ে আইনজীবির মাধ্যমে লিগ্যাল নোটিশ পাঠাই।কিন্তু এখনো পর্যন্ত আমি আমার পাওনা টাকা পাইনি।

ভোক্তভোগীর আইনজীবি এড.আতিকুল ইসলাম মামলার বিষয়ে সংবাদ মাধ্যমকে জানায়,চেক প্রতারনা করায় ২০১৬ সালে এন আই এ্যাক্ট ১৮৮১ এর ১৩৮ ধারায় ও দন্ডবিধি আইনের ৪০৬/৪২০ ধারায় মাসুদ পারভেজ অপরাধ করায় একটি লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়।কিন্তু মাসুদ পারভেজ লিগ্যাল নোটিশের আদের্শ অমান্য করায়।ঢাকা গুলশান-১ এর মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক লিঃঅডিট অফিসার   মোঃহানিফ ডাক্তারের ছেলে রিজেন্ট গ্রুপের এমডি মাসুদ পারভেজকে বিবাদী করে নারায়ণগঞ্জ ফতুল্লার হাজীগঞ্জের মৃত ওশা গাজীর ছেলে মিঠু গাজী চেক প্রতারনার মামলা করে যার সি আর মামলা নং ৪৬২/১৬ ও সেশন ১২৯৯/১৭। মামলা বর্তমান বিজ্ঞ যুগ্ন দায়রা জজ ৪র্থ আদালতে যুক্তিতর্ক অবস্থায় আছে।

প্রসঙ্গ, ২০১৫ মাসুদ পারভেজ মিঠু গাজীর নিকট থেকে ব্যক্তিগত কাজের জন্য ১০ লক্ষ ৯০ হাজার টাকা ধার নেয় যথাসময়ে ফেরত দেবার কথা বলে।পরবর্তীতে ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কশপের জন্য জাপান থেকে মিঠু গাজীকে ওয়ার্কশপের জন্য বিভিন্ন পার্টস এনে দিবে বলে আশ্বাস দেয়।

কিন্তু যথাসময়ে ওয়ার্কশপের জন্য বিভিন্ন পার্টস বা টাকা ফেরত কোনটা দিতে না পেরে মাসুদ পারভেজ মিঠু গাজী ২০১৫ সালের ১০ ডিসেম্বর একটি চেক দেয়।যার চেক নং গঞই/ঝই=৯০৪৪১০০ এবং মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক লিঃউত্তরা মডেল টাউন শাখার একাউন্ট নং ০০৭০৩১০০১৩৪১২।একি দিন নারায়ণগঞ্জ শাখায় মিঠু গাজী চেক জমা দিলে ব্যাংক তাকে জানায় চেকের সমপরিমাণ একাউন্টে টাকা নেই এবং চেকটি ডিসঅনার করে ফেরত দেয়।

২০১৬ সালের ১৭ মে নারায়ণগঞ্জ আদালত থেকে একটি লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয় ৩০ দিনের মধ্যে চেকের সমপরিমাণ টাকা বাদীকে দেবার জন্য।কিন্তু ৩০ দিনের মধ্যে তা পরিশোধ না করায় মামলার বিষয়ে সংবাদ মাধ্যমকে জানায়,চেক প্রতারনা করায় ২০১৬ সালে এন আই এ্যাক্ট ১৮৮১ এর ১৩৮ ধারায় একটি মামলা দায়ের করা হয়।

0 0 vote
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments

বন্দর উপজেলা যুবদলের উদ্যোগে দোয়া ও মিলাদ অনুষ্ঠিত

দ্যা বাংলা এক্সপ্রেস ডটকম: বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদলের ৪২তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে বন্দর উপজেলা যুবদলের উদ্যোগে দোয়া ও মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে ।
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x